বাস্তবে সন্দীপ্তার সঙ্গে রিজওয়ানের সম্পর্কটা ঠিক কেমন?













অন-স্ক্রিন দু’জনে নায়ক-নায়িকা এবং স্বামী-স্ত্রীও বটে। কিন্তু ক্যামেরার পিছনে দু’জনের কেমিস্ট্রি ঠিক কোন জায়গায়, সেই নিয়ে কৌতূহল রয়েছে অনেকেরই।

টেলিভিশনের সবচেয়ে হ্যান্ডসাম নায়কদের একজন। তাঁর ফ্যান ফলোয়িংও বিরাট কিন্তু রিজওয়ান রব্বানি শেখ এখনও সিঙ্গল। এর আগে অন্য একটি প্রতিবেদনে জানিয়েছিলেন, কেরিয়ারের যে পর্যায়ে রয়েছেন এখন তিনি, সেখানে প্রেম নিয়ে একেবারেই মাথা ঘামাতে চান না। বলেছিলেন, ‘‘রিজওয়ান রব্বানি শেখ ইজ ডেটিং হিজ কেরিয়ার!’’

যিনি সোচ্চারে সম্পর্কের কথা ঘোষণা করেন না, সচরাচর তাঁকে নিয়ে কৌতূহল বেশি থাকে মানুষের। এবেলা ওয়েবসাইটের পক্ষ থেকে প্রশ্ন ছিল, বাংলা এবং হিন্দি টেলিজগতের কোন নায়িকাদের ভ্যালেন্টাইনস ডে-তে ডেটে নিয়ে যেতে চান তিনি।

বাংলার ক্ষেত্রে ভাবতে খুব বেশি সময় নিলেন না। বললেন ‘‘তেমন কোনও প্ল্যানই নেই আসলে। তবে সন্দীপ্তাকেই নিয়ে যাব না হয় ডিনারে সুযোগ পেলে। কারণ আমাদের তো এমনিতে ছুটিও নেই আর তাছাড়া ও আমার কলেজের বন্ধু। আমরা একসঙ্গে পড়তাম আশুতোষ কলেজে। এটা অনেকেই জানেন না। যেহেতু প্রেমিকা বলতে কেউ নেই আর পুরনো বন্ধুই এখন নায়িকা, দুই বন্ধুই যাব না হয় ডেটে।’’

তবে রিজওয়ানের একজন ড্রিম ডেট রয়েছেন। যাঁকে ডেটে নিয়ে যেতে প্রবল ইচ্ছুক রিজওয়ান। তিনি আর কেউ নন, সুন্দরী ক্রিস্টল ডি’সুজা। কালারস টিভি-র সদ্য শুরু হওয়া ধারাবাহিক ‘বেলন ওয়ালি বহু’-র নায়িকা। ২০০৭ থেকে টেলিজগতে পা রেখেছেন তবে প্রথম নায়িকার ভূমিকায় আসেন ‘এক হাজারো মে মেরি বহনা হ্যায়’ ধারাবাহিকে। অভিনয়ের পাশাপাশি ভাল গান করেন। আর বেশ কিছু টেলি-পুরস্কারও জিতেছেন।

আশা করা যায় এই ভ্যালেন্টাইনস ডে-তে না হলেও, কোনও এক বছর রিজওয়ানের এই ইচ্ছেটা পূর্ণ হবে।